SSC Exam

তিন বিষয় এসএসসি পরীক্ষা ২০২২ হবে – যা বলল শিক্ষা মন্ত্রী

Pinterest LinkedIn Tumblr

মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের আওতাধীন চলতি বছর এসএসসি পরীক্ষা ২০২২ আয়োজন নিয়ে নানান সমস্যা দেখা দিয়েছে।

ইতিমধ্যে সিলেট ও সুনামগঞ্জের বন্যার পানিতে প্লাবিত হয়েছে। তাছাড়া সেখানে আবার নতুন ভাবে বন্যা আসতে যাচ্ছে।

অন্য দিকে দেশের উত্তরাঞ্চল অর্থাৎ রাজশাহী-রংপুর অংশে তিস্তার পানি প্রবেশ করছে।

যেখানে কয়েকটি এলাকা প্লাবিত হচ্ছে তাছাড়া আগস্ট মাসের মাঝামাঝি সময়ে দেশের দক্ষিণাঞ্চলে ঘূর্ণিঝড় আসতে পারে

এবং বর্তমানে সারা দেশে করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাচ্ছে প্রতিদিন অনেক মানুষ করোনা আক্রান্ত হচ্ছে এবং করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা যাচ্ছে।

আরও পড়ুনঃ

এই অবস্থা এসএসসি পরীক্ষায় আয়োজন নিয়ে নানান প্রতিবন্ধকতা দেখা দিয়েছে।

এইসব চিন্তা ভাবনা করে অনেক শিক্ষার্থী ও অভিভাবক দাবি তুলেছে তাদের তিন বিষয়ে পরীক্ষা আয়োজন করা হোক।

কেননা গত বছর অর্থাৎ 2021 সালের এসএসসি পরীক্ষার ক্ষেত্রে শুধুমাত্র তিন বিষয় পরীক্ষায় আয়োজন করা হয়েছিল।

যেখানে গ্রুপ ভিত্তিক বিষয়গুলোর উপর পরীক্ষা নেয়া হয়েছিল। এ ব্যাপারে শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে।

এর আগে শিক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছিল শুধু মাত্র চারটি বিষয় বাদ দেয়া হবে। যে বিষয়গুলো জেএসসি রেজাল্ট এর মাধ্যমে মূল্যায়ন করা হবে।

বিষয়গুলো তথ্য-ও-যোগাযোগ-প্রযুক্তি বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় বিজ্ঞান ধর্ম ও নৈতিক শিক্ষা।

শিক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে নতুন করে কোন বিষয় কমানো হবে না অর্থাৎ তিন বিষয়ে পরীক্ষা

আয়োজন করা হচ্ছে না। স্বাভাবিক নিয়মে পরীক্ষা করা হবে এমনই প্রস্তুতি নিয়েছে শিক্ষা বোর্ড।

আরও পড়ুনঃ

ইতিমধ্যে প্রশ্ন পত্র তৈরীর কাজ শেষ করেছে এবং প্রশ্নগুলো কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে।

তাই নতুন ভাবে কোন ধরনের বিষয় কমানোর সুযোগ এই মুহূর্তে নেই। যদি করোনা পরিস্থিতি এবং বন্যা পরিস্থিতি খারাপ হয়

তখন পরীক্ষা হতো আরো পিছিয়ে নেয়া হবে। বর্তমানে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্ত মতে আগামী 15 সেপ্টেম্বর এসএসসি পরীক্ষা শুরু হবে।

সেভাবে পরীক্ষার রুটিন তৈরি করা হয়েছে। যে সকল শিক্ষার্থী এসএসসি পরীক্ষার রুটিন তারা অবশ্যই এসএসসি পরীক্ষার রুটিন সংগ্রহ করতে হবে

এবং সেই অনুযায়ী পরীক্ষা আয়োজন করা হবে। এর আগে শিক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে এবারের পরীক্ষা 3 ঘণ্টার পরিবর্তে আয়োজন করা হবে দুই ঘন্টায়।

যার মধ্যে শিক্ষার্থীরা প্রথম থেকে 20 মিনিট সময় পাবে বহুনির্বাচনী প্রশ্ন উত্তরের জন্য এবং এক ঘন্টা 40 মিনিট সময় পাবে সৃজনশীল প্রশ্ন উত্তর।

আরও পড়ুনঃ

1 Comment

  1. Abdul matin Reply

    বাংলাদেশের ইতিহাসে এমন অযোগ্য শিক্ষা মনত্রি আর ঝোটেনাই।S s c পরিখখার একটা রুটিন পযর্ন্ত করাতে পারে না।নুনতম লজজা থাকলেও সহসা পদত‍্যাগ উচিৎ।

Write A Comment