All News

স্কুলছাত্রীকে প্রথমে ধর্ষণ এরপর হত্যা করা হয় – কিন্তু কেন ?

Pinterest LinkedIn Tumblr

নোয়াখালী সদর উপজেলায় তাসমিমা হোসেন আদিতে নামে এক অষ্টম শ্রেণি শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ এরপর গলা ও হাতের রগ কেটে হত্যা করা হয়।

হত্যার আগে তাসমিমা হোসেন আদিতিকে ধর্ষণ করা হয়। হত্যার সাথে জড়িত সন্দেহে পুলিশ একজনকে গ্রেফতার করেছে।

বৃহস্পতিবার 22 সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় পৌরসভা তিন নম্বর ওয়ার্ডে লক্ষ্মীনারায়ণপুর এলাকায় এই ঘটনা ঘটে।

আরেও পড়ুনঃ কম্পিউটার দক্ষতায় এইচএসসি পাসে ব্র্যাকে চাকরি সুযোগ – দেখুন

নিহত তাসমিমা হোসেন আদিতি নোয়াখালী সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ছিলেন এবং নোয়াখালী পৌরসভার তিন নম্বর ওয়ার্ডের

লক্ষ্মীনারায়ণপুর মৃত রিয়াজউদ্দিন হোসেনের মেয়ে ছিলেন। তার মা স্থানীয় একটি বেসরকারি বিদ্যালয়ের শিক্ষিকা হিসেবে কর্মরত অবস্থায় রয়েছেন।

পুলিশ প্রাথমিক ভাবে জানায় প্রতিবেশী নয়নের ছেলে মোহাম্মদ সাঈদ আদিতিকে উত্ত্যক্ত করতো।

অনেকবার হুমকিও দিয়েছে ধারণা করা হচ্ছে, হত্যা কিংবা দলগত পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী আদিতিকে

একা পেয়ে ঘরে ঢুকে তাকে ধর্ষণ করে এর পরবর্তীতে তাকে খুন করা হয় এবং ঘরের মালামাল লুট করা হয়।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন নিহতের মা রাজিয়া সুলতানা উপজেলার জয়নাল আবেদীন মেমোরিয়াল একাডেমী কে একজন শিক্ষিকা।

আরও পড়ুনঃ এসএসসি পরীক্ষার্থীকে পাঁচজন মিলে ধর্ষণ অতঃপর যা ঘটলো

সকাল সাতটার দিকে প্রতিদিনের মতো তিনি স্কুলে চলে যান আনুমানিক সন্ধ্যা 7 টার দিকে বাসায় এসে

থেকে দরজা তালা লাগানো দেখেন পাশের বাড়ি প্রতিদিনের মতো দরজা বন্ধ থাকায় কিছু অনুমান করতে পারেনি তিনি।

পরবর্তীতে নিহতের মা দরজা খুলে মেয়ের খোঁজ করতে থাকে একপর্যায়ে তিনি বাসের পেছনের দিকে জালনা

দিয়ে দেখেন তার গলাকাটা রক্তাক্ত এবং বিবস্ত্র অবস্থায় বিছানায় পড়ে আছে এর পরবর্তীতে দরজা ভেঙে ঘরে প্রবেশ করেন তিনি।

সুধারাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মোঃ আনারুল ইসলাম জানান বৃহস্পতিবার রাত আটটার দিকে

কিশোরী গলাকেটে হত্যার বিষয়টি পুলিশ জানতে পারে। এর পরবর্তী তাৎক্ষণিক পুলিশ ঘটনাস্থলে যায় ঘটনাস্থলে

গিয়ে ওই ছাত্রীকে নিজ রুমে গলাকাটা হাতের রগ কাটা ডেড বডি দেখতে পায়। তবে এখন পর্যন্ত হত্যার কারণ

জানা যায়নি আপাতত মরদেহ উদ্ধার করে 250 শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতাল পাঠানো হয়েছে বিষয়টি তদন্ত সাপেক্ষে পরবর্তীতে জানানো হবে।

আরও পড়ুনঃ সার্টিফিকেট নাম ও বয়সের ভুলের সংশোধন আবেদন করার নিয়ম

Write A Comment