HSC Exam

২ টি সুখবর এইচএসসি পরীক্ষা ২০২২ নিয়ে – সুখবর জেনে নেও সবাই

Pinterest LinkedIn Tumblr

গত 6 নভেম্বর চলতি বছর এইচএসসি পরীক্ষা ২০২২ শুরু হয়েছে, বর্তমানে পরীক্ষার চলমান অবস্থায় রয়েছে। অনেকগুলো বিষয় পরীক্ষা শেষ করা হয়েছে।

এক্ষেত্রে পরীক্ষার খাতা দেখা শুরু করেছে শিক্ষকরা, এখানে দুইটি সুখবর দিয়েছে শিক্ষকরা। যেখানে তারা বলেছে খাতা দেখা কিভাবে হচ্ছে

এবং শিক্ষার্থীরা কি কি সুযোগ সুবিধা পাচ্ছে। এ বছরের নতুন নিয়মে পরীক্ষা হয়েছে যা অনেকেই নিয়ম বুঝতে পারিনি।

আরও পড়ুনঃ

যার কারণে তাদের পরীক্ষা খারাপ গেছে। আবার কিছু শিক্ষার্থীর নিয়ম ভালোভাবে বুঝতে পারার কারণে খুব সহজে ভালো ফলাফল করছে।

এরই মধ্যে শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে থেকে বাংলা ইংরেজি সহ কয়েকটি বিষয়ে খাতা শিক্ষকদের হাতে পৌঁছেছে।

যে বিষয়গুলোর খাতা দেখা শেষ করে বোর্ডের কাছে নম্বর পাঠাতে হবে। এক্ষেত্রে শিক্ষকরা জানায় খাতা দেখা শুরু করেছি,

খুব শীঘ্রই কার্যক্রম শেষ করা হবে। প্রতি শিক্ষক 200 থেকে 300 পরীক্ষার খাতা পেয়েছে। ইংরেজি ও বাংলা খাতা দেখার

ক্ষেত্রে শিক্ষকরা আমাদেরকে জানায় যে সকল শিক্ষার্থী পরীক্ষা লিখেছে তাদেরকে আমরা নম্বর দিচ্ছি,

কিছু শিক্ষার্থী সঠিক লিখেছে তাদেরকে আমরা সম্পূর্ণ নম্বর দিয়েছি। কিছু শিক্ষার্থী কিছুটা সঠিক কিছুটা ভুল

আরও পড়ুনঃ

লিখেছে তাদেরকে সেভাবেই নম্বর দেয়া হচ্ছে অর্থাৎ সবাইকে নম্বর দাও সর্বোচ্চ চেষ্টা করা হচ্ছে।

যেসব শিক্ষার্থী 1 বা 2 নম্বরের জন্য ফেল করছে তাদেরকে আমরা পাশ করিয়ে দেওয়া সর্বোচ্চ চেষ্টা করছে,

বিশেষ করে ইংরেজি ক্ষেত্রে অনেক শিক্ষার্থী মাত্র 1 বা 2 নম্বরের জন্য ফেল করেছে আশা করা যাচ্ছে।

তারা আমাদের এখান থেকে পাস করে যাবে। কারণ ইংরেজি সম্পূর্ণ বিষয়টি শিক্ষকের হাতে রয়েছে শিক্ষক

চাইলেই পাস করিয়ে দিতে পারবে। এক্ষেত্রে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের একাধিক কর্মকর্তা জানান আমরা শিক্ষকদেরকে নির্দেশনা

দিয়েছে যেন খাতা যত সহজ করে দেখে, যাতে শিক্ষার্থীরা ভালো নম্বর পায়। কারণ বিভিন্ন সমস্যার মধ্যে তারা পরীক্ষা অংশগ্রহণ করেছে।

তাদের ভাল ফলাফল করা দরকার। এ ক্ষেত্রে নতুন নিয়মে পরীক্ষা হওয়ার কারণে অনেকে নিয়ম বুঝতে না পারায় ফেল করবে।

তাই তাদেরকে পাস করিয়ে দেয়ার কথা বলা হয়েছে। এছাড়া নৈবিত্তিক কোন ধরনের নম্বর বাড়িয়ে দেয়া হবে কিনা

আরও পড়ুনঃ

জানতে চাইলে তারা বলেন নৈবিত্তিক এর সম্পূর্ণ বিষয়টি বোর্ড কর্তৃপক্ষ দেখবে। বোর্ড কর্তৃপক্ষ চাইলে 1 বা 2 নম্বর বাড়িয়ে দিতে পারে।

তবে সেটা সম্পূর্ণ তাদের বিষয়, এটা কখনোই তারা কাউকে জানাবে না। শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে ধারণা

করছেন এ বছর পাসের হার স্বাভাবিক থাকবে কারণ শিক্ষার্থীর অনেক ভালো পরীক্ষা দিয়েছে।

Write A Comment